মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২৪

নাটোরের সিংড়ায় চাঞ্চল্যকর নুর ইসলাম হত্যা মামলার তদন্তে প্রাপ্ত আসামী দিনাজপুর থেকে গ্রেফতার

আপডেট:

পঞ্চগড় জেলা প্রতিনিধি মোঃখাদেমুল ইসলাম

 

বিজ্ঞাপন

র‌্যাব-৫সিপিসি-২ নাটোর ক্যাম্পের অভিযানে নাটোর জেলার সিংড়া উপজেলার নাটোর-বগুড়া মহাসড়কে জামতলী বাজার নামক এলাকায় চাঞ্চল্যকর নুরইসলাম হত্যা মামলার আসামী মোঃ দুলাল (৩৬)কে দিনাজপুর জেলার বিরল উপজেলা থেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

উল্লেখ্য যে, মৃত মোঃ নুর ইসলাম (৫১)পিতা মৃত হাসান আলী সাং বাবুআনিজুত,থানা তেতুলিয়া, জেলা পঞ্চগড় তার নিজস্ব ট্রাকে হেলপারি করত এবং এজহার আসামি ট্রাক চালাত। অধিকাংশ সমই বাদির ভাই মৃত মোঃ নুর ইসলাম চালকের সাথে ট্রাকে থাকত ও মাঝে মধ্যে বাড়িতে আসত।গত ১২ অক্টোবর ২৩ ইং বাদির ভাই মৃত মোঃ নুর ইসলাম তার ট্রাকে যাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। ২১ অক্টোবর ২৩ ইং তারিখ বিকেল পাঁচটার দিকে মৃত নুর ইসলাম মোবাইল ফোনে তার স্ত্রীকে জানায় যে সে ট্রাক নিয়ে সিরাজগঞ্জের দিকে যাচ্ছে। এরপর মৃত নুর ইসলামের পরিবারের লোকজনের সাথে যোগাযোগ হয়নি। ২২ অক্টোবর ২৩ ইং তারিখ দুপুর একটার দিকে তেতুলিয়া থানা হতে মৃত নুর ইসলামের পরিবার কে খবর দেয় নুর ইসলামের মৃত দেহ সিংড়া থানায় আছে। সংবাদ পেয়ে বাদি,মৃতের স্ত্রীসহ আত্মীয়
স্বজন নাটোর জেলার সিংড়া থানায় এসে মৃত নুর ইসলামের মৃতদেহ শনাক্ত করে। পরে বাদি সিংড়া থানা পুলিশের নিকট হতে জানতে পারে যে, নাটোর জেলার সিংড়া থানার নাটোর-বগুড়া মহাসড়কের জামতলী বাজার এলাকা হতে আনুমানিক ৫০০ গজ উত্তরে ঝোপঝাড়ের মধ্যে জখমী অবস্থায় তার মৃত্যুদেহ পড়ে ছিল। বাদী ট্রাক চালক লাবুর সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করলে সে এলোমেলো কথাবার্তা বলে, পরে মৃত নুর ইসলামের ভাই মোঃ বছির উদ্দিন বাদী ট্রাক চালক মোঃ লাবুসহ অজ্ঞাতনামা আসামীদের নামে সিংড়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। উক্ত মামলা রুজুর পর থেকেই লাবুর সাথে জড়িত আসামিরা আত্নগোপনে চলে যায়। ঘটনার পরে পরই এজহারনামীয় আসামী মোঃ লাবু কে গ্রেফতার করে। থানা পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে এজহারনামীয় আসামী মোঃ লাবু ঘটনার সাথে জড়িত থাকার স্বীকার সহ ঘটনার সাথে জড়িত থাকা আসামী মোঃ দুলাল এর নাম প্রকাশ করে।

বিজ্ঞাপন

 

পরে উক্ত মামলার তদন্তকারী অফিসার আসামী দুলাল কে গ্রেফতারের জন্যে র‌্যাব- অধিযাচন পত্র প্রদান করেন। তৎপেক্ষিতে র‌্যাব গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি ও ছায়া তদন্ত শুরু করে। র‌্যাব-১৩ দিনাজপুর ও নীলফামারী ক্যাম্প ও র‌্যাব-৫সিপিসি-২ নাটোর ক্যাম্প গোয়েন্দা তথ্য ও তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে ঘটনার সাথে জড়িত তদন্তে প্রাপ্ত আসামী মোঃ দুলাল(৩৯)পিতা মোঃ হাকিম উদ্দিন , সাং কিসমত হরিপুর,
কেরানী পাড়া,থানা বোদা, জেলা পঞ্চগড় এর অবস্থান শনাক্ত পূর্বক জানতে পারে যে, তদন্ত প্রাপ্ত আসামী তার নিজ পরিচয় গোপন রেখে দিনাজপুর জেলার বিরল থানাধীন সেতারা বাজার নদীর পারে ব্লক বানানোর কারখানায় কাজ করত।

র‌্যাব-৫সিপিসি-২ নাটোর ক্যাম্পের কোম্পানী অধিনায়ক, সিনিয়র সহকারী পরিচালক, সঞ্জয় কুমার সরকার ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আঃ রাজ্জাক খান দ্বয়ের নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করে ২২ অক্টোবর ২৩ ইং ০৩.০০ ঘটিকায় সিংড়া থানার মামলা নং ১৫, ২৩.১০.২৩ খ্রিস্টাব্দ ধারা ৩০২/২০১/৩৪ পেনাল কোড এর হত্যা মামলার তদন্তে প্রাপ্ত আসামী মোঃ দুলাল (৩৯) পিতা হাকিম উদ্দিন সাং কিসমত হরিপুর, কেরানী পাড়া, থানা বোদা জেলা পঞ্চগড় কে দিনাজপুর জেলার বিরল থানাধীন সেতারা বাজার নদীর পারে ব্লক বানানোর হতে তাকে আটক করেছে র‌্যাব। গ্রেফতারকৃত আসামীকে সিংড়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

র‌্যাব-৫ কে তথ্য দিন – মাদক , অস্ত্রধারী ও জঙ্গিমুক্ত বাংলাদেশ গঠনে অংশ নিন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:

সর্বাধিক পঠিত